ঢাকা সোমবার, জানুয়ারী ১৭, ২০২২
উৎসাহ উদ্দীপনায় ইতালিতে মহান বিজয় দিবসের সুবর্ণজয়ন্তী পালিত
  • স্টাফ রিপোর্টার
  • ২০২১-১২-১৮ ০০:৪০:৩২

ইতালির রোমে বাংলাদেশ দূতাবাস কর্তৃক যথাযোগ্য মর্যাদায় গত ১৬ই ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবসের সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন করা হয়েছে। 
  ইতালিতে কোভিড-১৯ অতিমারীর সংকটময় পরিস্থিতির পরিপ্রেক্ষিতে অনুষ্ঠানটি হাইব্রিড মাধ্যমে অনুষ্ঠিত হয়। 
  ইতালি, সার্বিয়া ও মন্টেনিগ্রোতে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মোঃ শামীম আহসান গত ১৬ই ডিসেম্বর সকাল সাড়ে ৯টায় দূতাবাসের সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীর উপস্থিতিতে আনুষ্ঠানিকভাবে জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন। এরপর এক মিনিট নীরবতা পালন করে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। 
  বিদেশি অতিথি, স্থানীয় নেতৃবৃন্দ ও প্রবাসী বাংলাদেশীদের ভার্চুয়াল উপস্থিতিতে অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় পর্ব আয়োজন করা হয় দূতাবাসের সম্মেলন কক্ষে।
  পবিত্র ধর্মগ্রন্থসমূহ থেকে পাঠ, দিবস উপলক্ষ্যে রাষ্ট্রপতি, প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্র মন্ত্রী ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর প্রেরিত বাণী পাঠ এবং ‘স্বাধীনতা শব্দটি কি করে আমাদের হলো’ শীর্ষক প্রামাণ্যচিত্র প্রদর্শন ছিলো অন্যান্য উল্লেখযোগ্য কর্মসূচি। 
  আলোচনা অংশে বাংলাদেশের দু’জন অনারারি কনসালসহ অন্যান্য বিদেশি অতিথিবৃন্দ বিজয় দিবসের সুবর্ণ জয়ন্তীতে উষ্ণ অভিনন্দন জানান এবং প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের চলমান উন্নয়ন অভিযাত্রার ভূয়সী প্রশংসা করেন। স্থানীয় নেতৃবৃন্দ তাদের বক্তব্যে বঙ্গবন্ধু এবং সকল শহিদের প্রতি তাদের গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করে বঙ্গবন্ধু ও শহিদদের লালিত স্বপ্নকে বাস্তবায়িত করার দৃঢ় প্রত্যয় পুনর্ব্যক্ত করেন। 
  ঢাকাস্থ জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণ প্লাজায় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে অনুষ্ঠিত শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যোগদান করে দূতাবাসের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ স্বতঃস্ফূর্তভাবে জাতীয় পতাকা মুষ্টিবদ্ধ হাতে শপথ গ্রহণ করেন।    
  সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা নিবেদন করে রাষ্ট্রদূত শামীম আহসান তার বক্তব্যে উল্লেখ করেন যে, বঙ্গবন্ধুর সম্মোহনী নেতৃত্বই ছিলো বাংলাদেশের স্বাধীনতা লাভের মূল চালিকা শক্তি। রাষ্ট্রদূত ২০২১ সালের বিশেষ তাৎপর্য তুলে ধরে উল্লেখ করেন যে ইতিহাসের এই মাহেন্দ্রক্ষণে বাংলাদেশ জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী, স্বাধীনতা ও মহান বিজয় দিবসের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করছে। 
  মহান বিজয় দিবসের এই আনন্দঘন মুহূর্তে তিনি ইতালি প্রবাসী বাংলাদেশীদের ঐক্যবদ্ধ সহাবস্থানের আহ্বান জানান। রাষ্ট্রদূত দূতাবাসের সেবা কার্যক্রমের মান কাঙ্ক্ষিত পর্যায়ে উন্নীত করার লক্ষ্যে প্রবাসীদের আন্তরিক সহযোগিতা ও পরামর্শ কামনা করেন। বর্তমান সরকারের প্রবাসী বান্ধব নীতির বিষয়ে উল্লেখ করে তিনি উন্নত সেবা নিশ্চিত করার প্রত্যয়ে দূতাবাস কর্তৃক গৃহীত বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপের প্রতি আলোকপাত করেন। 
  অনুষ্ঠানের সাংস্কৃতিক পর্বে, হাইব্রিড মাধ্যমে উপস্থিত অতিথিবৃন্দ শিশু শিল্পীদের পরিবেশনায় দেশাত্মবোধক গান ও নাচের ধারণকৃত অংশ উপভোগ করেন। মিজ্সুস্মিতা সুলতানার পরিচালনায় এবং স্থানীয় সাংস্কৃতিক সংগঠন ‘সঞ্চারী সংগীতায়ন’ এর শিক্ষার্থী দীপা পোদ্দার, দিয়া পোদ্দার, স্বস্তিকা রুপন্তি বণিক, পুনম শীল, মিথিলা দাস মেঘা ও সানি বণিক এর সপ্রতিভ পরিবেশনা দর্শকদের মুগ্ধ করে। 
  জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, তার পরিবারের শহীদ সদস্যবৃন্দ এবং মুক্তিযুদ্ধের সকল শহীদের বিদেহী আত্মার প্রতি মাগফিরাত কামনা করে এবং দেশের উত্তরোত্তর উন্নয়ন ও সমৃদ্ধি কামনা করে বিশেষ দোয়া ও মোনাজাত করা হয়।
  মোঃ এরফানুল হক, কাউন্সেলর(শ্রম ও কল্যাণ) এবং মোঃ আশফাকুর রহমান, দ্বিতীয় সচিব এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে নেপলস্ও কাতানিয়াতে নিযুক্ত বাংলাদেশ অনারারি কনসালগণ, বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ, প্রবাসী বাংলাদেশীগণ, ইতালি ও ইউরোপীয় গণমাধ্যমকর্মীগণ এবং দূতাবাসের সকল কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ অংশগ্রহণ করেন।  

 

ইউএন উইমেন নির্বাহী বোর্ডের সভাপতি নির্বাচিত হলেন রাষ্ট্রদূত রাবাব ফাতিমা
করোনার নতুন ধরণ ওমিক্রনকে মৃদু ভাবা বোকামি ঃ ডব্লিওএইচও
জাতিসংঘে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনে মহান বিজয় দিবস উদযাপন
সর্বশেষ সংবাদ