ঢাকা রবিবার, এপ্রিল ১১, ২০২১
চিকিৎসা শিক্ষায় পথ দেখাচ্ছে ঃ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল কলেজ ফরিদপুর
  • স্টাফ রিপোর্টার
  • ২০২১-০৪-০১ ০২:৫৭:১২

সোনালী আঁশে ধন্য, পল্লী কবি জসীম উদ্দীনের স্মৃতি বিজড়িত, পদ্মা পাড়ের জেলা ফরিদপুরের অন্যতম চিকিৎসা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ। প্রতিষ্ঠানটি ২৯তম বছর পার করে ৩০তম বছরে জাতির পিতার নাম ধারণ করে ধন্য হয়েছে।

  গত ১৭ ও ১৮ই মার্চ জাঁকজমক ভাবে পালিত হলো প্রতিষ্ঠানটির ২৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। অনুষ্ঠান সূচীর মধ্যে ছিলো বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী পালন, আনন্দ শোভা যাত্রা, বিশ্ব শিশু দিবস ও প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান ও ব্যান্ড শো। এছাড়া দৃষ্টিনন্দন সমৃদ্ধ স্মরণিকা ও ডিরেক্টরী প্রকাশিত হয়েছে।

  জমকালো আলপনা, আলোকসজ্জা, মুজিব পুষ্প কাননসহ নানা সাজে অপরূপ রূপ ধারণ করেছিল কলেজে ক্যাম্পাস। প্রায় ৩হাজার প্রাক্তন ও বর্তমান ছাত্র, শিক্ষক ও তাঁদের পরিবার-পরিজন এই মহাযজ্ঞ এ অংশগ্রহণ করেন। অধ্যাপক রতন কুমার সাহার নেতৃত্বে একটি দল এলামনাই ও অতিথিদের বরণ করে।

  ডাঃ আবু ফয়সাল মোঃ পারভেজের নেতৃত্বে রেজিস্ট্রেশন কমিটি দক্ষতার সাথে কাজ করে। উপাধ্যক্ষ ডাঃ দিলরুবা জেবা সার্বিকভাবে সকল বিষয় দেখভাল করেন। প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর দৃষ্টিনন্দন লোগোটি তৈরি করেন স্থপতি জিয়াউল হক হাসিব। প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে প্রকাশিত হয় চার রঙের ম্যাগাজিন “পথিকৃৎ” এবং একটি ডিরেক্টরী। অনুষ্ঠানটি আয়োজন ও পুরোভাগে নেতৃত্বে ছিলেন অধ্যক্ষ মোস্তাফিজুর রহমান রঞ্জু।

  মূলত বর্তমান অধ্যক্ষের যোগদানের পর থেকেই মেডিকেল কলেজটি বদলে যেতে শুরু করে। তাঁর জাদুকরী নেতৃত্বে মেডিকেল কলেজ গেটের দু’পাশে দীর্ঘদিন ধরে জমে থাকা ময়লার স্তূপ রূপান্তরিত হয় নয়ন জুড়ানো সূর্যমুখী পুস্পকাননে। কলেজের প্রধান ফটক হতে শুরু করে পুরো ক্যাম্পাসে নানাবিধ ফুল-ফলের গাছ এ সজ্জিত। স্থাপিত হয়েছে দৃষ্টিনন্দন মুজিব পুষ্প কানন। ক্যাম্পাসের পুকুরে মাছ চাষ করা হয়েছে। বহিরাগতদের অবাধ চলাচলে নিয়ন্ত্রণ এনে ক্যাম্পাসের নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদারের ব্যবস্থা করা হয়েছে। ক্যাম্পাসের পরিচ্ছন্নতা রক্ষার সুবিধার্থে অব্যবহৃত জমি চিকিৎসক ও কর্মচারীদের মাঝে ফুল ও সবজি বাগানের জন্য বরাদ্দ দেয়া হয়েছে।

  মুজিব বর্ষে বিজয় দিবসকে সামনে রেখে সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি- বাঙালির মুক্তির কান্ডারী জাতির জনক শেখ মুজিবুর রহমানের স্মৃতির প্রতি শ্রদ্ধা জানাতে স্থাপন করা হয়েছে ‘বঙ্গবন্ধু ম্যুরাল’, ‘বঙ্গবন্ধু কর্ণার’ এবং ‘মুজিব পুষ্পকানন’। ক্রীড়া ক্ষেত্রে নীরব বিপ্লব সাধিত হয়েছে। টেবিল টেনিস, ক্যারম, ব্যাডমিন্টনসহ অন্যান্য ঘরোয়া খেলাধূলার টেকসই সরঞ্জাম সরবরাহ, মেরামত এবং স্পোর্টস রুম চালু করা হয়েছে।ক্যাম্পাসে স্থায়ী এবং টেকসই ব্যাডমিন্টন কোর্ট ও ভলিবল কোর্ট এখন দৃশ্যমান।

  শুধু সৌন্দর্য বা এক্সট্রা কারিকুলার কার্যক্রমই নয়, একাডেমিক কার্যক্রমেও গতিসঞ্চারিত হয়েছে। একাডেমিক ভবনে চালু করা হয়েছে বহুল আকাঙ্খিত উচ্চগতিশীল সেন্ট্রাল ওয়াই-ফাই জোন। অনলাইন ক্লাসের জন্য প্রত্যেক বিভাগকে আলাদা জুম আইডি দেয়া হয়েছে। আগামী দুই বছরের মধ্যে দেশ সেরা মেডিক্যাল কলেজ হবার লক্ষ নিয়ে এগিয়ে চলেছে অধ্যাপক মোস্তাফিজুর রহমানের নেতৃত্বাধীন প্রতিষ্ঠানটি। 

  এই প্রতিবেদকের সাথে কথা বলেন, মেডিসিন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও প্রকাশনা উপ-কমিটির সদস্য-সচিব ডাঃ মোঃ ইকবাল হোসেন। 

  তিনি বলেন একাডেমিক এবং নিয়মিত পাঠক্রম বহির্ভূত সকল বিষয়ে এই প্রতিষ্ঠান সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের জন্য অনন্য উদাহরণ সৃষ্টি করবে।

ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় ‘শিশু বক্তা’ রফিকুলের বিরুদ্ধে তদন্ত প্রতিবেদন ৩০শে মে
ফরিদপুরের সালথায় গুজব ছড়িয়ে সরকারী স্থাপনায় তান্ডব ও অগ্নিসংযোগ॥১জন নিহত
চিকিৎসা শিক্ষায় পথ দেখাচ্ছে ঃ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল কলেজ ফরিদপুর
সর্বশেষ সংবাদ