ঢাকা শুক্রবার, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২১
রাজবাড়ী সদরের খানখানাপুর ও শহীদ ওহাবপুরে কর্মহীন ৪০০ পরিবারের মধ্যে চাল বিতরণ করলেন এমপি
  • আশিকুর রহমান
  • ২০২১-০৮-০১ ০১:৩৮:১২
রাজবাড়ী-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ কাজী কেরামত আলী গতকাল ৩১শে জুলাই দুপুর খানখানাপুর ও শহীদ ওহাবপুর ইউনিয়নে করোনায় কর্মহীন ৪০০টি পরিবারের মধ্যে পরিবারের মধ্যে জিআর চাল বিতরণ করেন -মাতৃকণ্ঠ।

করোনায় কর্মহীন ও বিভিন্ন দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত রাজবাড়ী সদর উপজেলার খানখানাপুর ও শহীদওহাবপুর ইউনিয়নে ৪০০টি পরিবারের মধ্যে পরিবার প্রতি ১০ কেজি করে জিআর চাল বিতরণ করা হয়েছে। 

  গতকাল ৩১শে জুলাই দুপুর সাড়ে ১২টায় খানখানাপুর সুরাজ মোহিনী ইনস্টিটিউট স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে ২০০টি পরিবারের মধ্যে প্রধান অতিথি হিসেবে এসব চাল বিতরণ করেন রাজবাড়ী-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ কাজী কেরামত আলী। 

  এরপর দুপুর দেড়টায় শহীদওহাবপুর ইউনিয়নের আলহাজ্ব নিজাম উদ্দিন আহম্মদ উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে আরো ২০০টি পরিবারের মধ্যে চাল বিতরণ করেন সংসদ সদস্য আলহাজ¦ কাজী কেরামত আলী। 

  একই সঙ্গে চাল নিতে আসা ৪০০ জনের প্রত্যেককে নিজের ব্যক্তিগত তহবিল থেকে নগদ ১০০ করে টাকা প্রদান করেন সংসদ সদস্য আলহাজ¦ কাজী কেরামত আলী। 

  এ সময় রাজবাড়ী সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাহমি মোঃ সায়েফ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান রাকিবুল হাসান পিয়াল, সদর উপজেলা সহকারী প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা বিজয় কুমার প্রামাণিক, জেলা পরিষদের সদস্য নূর মোহাম্মদ ভূইয়া, খানখানাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ রেজাউল করিম লাল, মূলঘর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মান্নান মুসল্লী, পাঁচুরিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ্ব কাজী আলমগীর হোসেন, খানখানাপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মোঃ আমির আলী মোল্লা, শহীদ ওহাবপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ ফরিদ, বসন্তপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক আব্দুল মান্নান গাজী, শহীদ ওহাবপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী মোঃ শাহীন খাঁন, শহীদ ওহাবপুর ইউনিয়ন পরিষদের ৩নং ওয়ার্ডের সদস্য এবং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদের মিন্টুসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

  চাল বিতরণকালে সংসদ সদস্য আলহাজ্ব কাজী কেরামত আলী বলেন, বিএনপির নেতারা টেলিভিশনে টকশোতে বড় বড় কথা বলে। কোথায়, এই মহামারির সময় তো তাদের কাউকে মাঠে নেমে মানুষের পাশে দাঁড়াতে দেখা যায় না। তারা শুধু ঘরে বসে বড় বড় কথা বলতে পারে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে আমরা সবসময় জনগণের পাশে আছি। আপনারা সকলেই জননেত্রী শেখ হাসিনার জন্য দোয়া করবেন।

  তিনি বলেন, আজকে আমাদের রাজবাড়ী ও গোয়ালন্দের কৃতি সন্তান সাবেক সংসদ সদস্য এডঃ ওয়াজেদ আলী চৌধুরী সাহেবের মৃত্যু বার্ষিকী। তার আত্মার মাগফেরাত কামনা করি। ১লা আগস্ট থেকে শোকাবহ আগস্ট মাস শুরু। ১১ই আগস্ট পবিত্র মহররম। ১৫ই আগস্ট আমাদের হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে স্বপরিবারে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। ১৮ই আগস্ট আমার বাবা কাজী হেদায়েত হোসেনকে হত্যা করা হয়। তারপর ২১শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা দিবস। অর্থাৎ, আগস্ট মাসটাই হচ্ছে আমাদের শোকের মাস। তারপর আবার করোনাকালীন সময়ে চারপাশে করোনায় আক্রান্ত হয়ে অনেক মানুষ মারা যাচ্ছেন। করোনা থেকে বাঁচতে সকলেই মাস্ক পড়বেন, স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলবেন এবং নিজের সুরক্ষার জন্য সকলেই করোনার টীকা নিবেন। করোনা থেকে বাঁচতে হলে সকলকে টীকা নিতেই হবে। 

  তিনি বলেন, আগামী ৭ই আগস্ট থেকে প্রতিটি ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে সরকারীভাবে করোনার টিকা দেওয়া হবে। আপনারা শুধু ভোটার আইডি কার্ড সঙ্গে নিয়ে গিয়ে টিকা নিয়ে নিবেন। মহান আল্লাহ্ রাব্বুল আলামীন যেন মহামারি করোনা থেকে আমাদের সবাইকে হেফাজত করেন এর জন্য সকলে আল্লাহ্র কাছে প্রার্থনা করবেন। 

  উল্লেখ্য, সুরাজ মোহিনী ইনস্টিটিউট স্কুল এন্ড কলেজ মাঠে ২০০টি পরিবারের মধ্যে চাল বিতরণ শেষে খানখানাপুর শেখ রাসেল মিনি স্টেডিয়ামে অবস্থিত ‘জন্ম মানবতার জন্য (জমজ)’ নামে একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের কার্যালয় পরিদর্শন করেন সংসদ সদস্য আলহাজ্ব কাজী কেরামত আলী। এ সময় তিনি সংগঠনটির উন্নয়নের জন্য সংগঠনের সভাপতি খাজা আব্দুস ছাত্তার বাবলু ও সাধারণ সম্পাদক সাইফুজ্জামান সাগরের কাছে নিজের ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ৫০ হাজার টাকা প্রদান করেন। 

‘অতি জরুরি’ ভিত্তিতে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন জোরদারের দাবি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার
করোনা ভাইরাসের ভ্যাকসিনকে সার্বজনীন গণপণ্য ঘোষণার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর
সংবাদ সম্মেলনে নিজেকে রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি প্রার্থী ঘোষণা দিলেন কাজী কেরামত আলী
সর্বশেষ সংবাদ