ঢাকা সোমবার, ডিসেম্বর ৬, ২০২১
কালুখালীর ৮জন বিদ্রোহী ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থীকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার
  • স্টাফ রিপোর্টার
  • ২০২১-১১-১৬ ০০:২২:৫১

তৃতীয় ধাপে অনুষ্ঠিতব্য ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে রাজবাড়ীর কালুখালী উপজেলার ৮ জন বিদ্রোহী ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থীকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। 
   গত ১৪ই নভেম্বর কালুখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আতিউর রহমান নবাব ও সাধারণ সম্পাদক খায়রুল ইসলাম খায়েরের স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে। বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়েছে, দলের মনোনয়নপ্রাপ্ত নৌকা প্রতীকের প্রার্থীদের বিরুদ্ধে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে নির্বাচনে অংশ নেয়ায় দলীয় গঠনতন্ত্রের ৪৭/১১ ধারা মোতাবেক তাদেরকে বহিষ্কার করা হয়েছে। 
   বহিষ্কৃতরা বিদ্রোহী প্রার্থীরা হলেন ঃ মৃগী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান বদর উদ্দিন সরদার, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক রফিকুজ্জামান এবং উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য ও বর্তমান চেয়ারম্যান শহিদুজ্জামান মোল্লা সাগর; সাওরাইল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক গোলাম সরোয়ার ও ইউনিয়ন যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক আহম্মদ আলী; মাজবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ হোসেন মাস্টার; মদাপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদের সদস্য মিজানুর রহমান মজনু এবং ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক ও  বর্তমান চেয়ারম্যান আবুল কালাম মৃধা।
   এ বিষয়ে কালুখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আতিউর রহমান নবাব বলেন, তৃতীয় ধাপের এ নির্বাচনে আওয়ামী লীগের একাধিক বিদ্রোহী প্রার্থী নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। দলীয় প্রার্থীদের বিজয় নিশ্চিত করতে বিদ্রোহী প্রার্থীদেরকে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে দলীয় প্রার্থীদের পক্ষে কাজ করার আহ্বান জানানো হয়েছিল। কিন্তু বিদ্রোহী প্রার্থীরা মনোনয়ন প্রত্যাহার না করায় তাদেরকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়েছে। এ সংক্রান্ত চিঠিও তাদের কাছে পাঠানো হয়েছে।
   বহিষ্কার হওয়া মৃগী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক চেয়ারম্যান বদর উদ্দিন সরদার বলেন, এভাবে বহিষ্কার করার কোন এখতিয়ার নেই। তাকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেয়া হয়েছিল। তিনি এর উত্তরও দিয়েছেন। পরে বহিষ্কারের বিষয়ে তাকে কিছু জানানো হয়নি।
   বহিষ্কার হওয়া মাজবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইউসুফ হোসেন মাস্টার বলেন, আমি এই ইউনিয়নের সাবেক মেম্বার। এলাকায় আমার জনপ্রিয়তা রয়েছে। তাই নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছি। এ ইউনিয়নে দল থেকে যাকে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে সে দলের সদস্য না। ওয়ার্ড, ইউনিয়ন, উপজেলা কোন কমিটিতেই নেই।

রাজবাড়ীতে নৌকার বিপক্ষের বিদ্রোহীদের প্রার্থীতা প্রত্যাহারের আহবান, অন্যথায় দল থেকে বহিষ্কার
কালুখালীর ৮জন বিদ্রোহী ইউপি চেয়ারম্যান প্রার্থীকে আওয়ামী লীগ থেকে বহিষ্কার
রাজবাড়ী জেলা আওয়ামী লীগের সেক্রেটারীকে জাসদের নেতাকর্মীর ফুলেল শুভেচ্ছা
সর্বশেষ সংবাদ