ঢাকা বুধবার, এপ্রিল ১৭, ২০২৪
রাজবাড়ী সদরের জৌকুড়ায় স্বামীর হাতে স্ত্রী স্বর্ণার মৃত্যু
  • ষ্টাফ রিপোর্টার
  • ২০২৪-০৪-০২ ১৬:১৮:০৭

রাজবাড়ী সদর উপজেলার চন্দনী ইউনিয়নের জৌকুড়া এলাকায় শ্বশুর বাড়ি গিয়ে স্ত্রী মোছাঃ স্বর্ণা খাতুন (১৮)কে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে হত্যার দায়ে স্বামী মোঃ সোহেল (২১)কে থানা পুলিশ গ্রেফতার করেছে।  
 গত মঙ্গলবার রাজবাড়ী সদর থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মোঃ ইফতেখারুল আলম প্রধান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।
 গ্রেফতারকৃত মোঃ সোহেল রাজবাড়ী সদর উপজেলার রামকান্তপুর(ঈদগাহ মাঠের পাশে) এলাকার আলাউদ্দিন মৃধার ছেলে।
 অন্যদিকে নিহত স্ত্রী মোছাঃ স্বর্ণা খাতুন একই উপজেলার চন্দনী ইউনিয়নের জৌকুড়া এলাকার মোঃ মুন্নাফ মৃধার মেয়ে।
 জানা গেছে, দেড় বছর আগে প্রেমের টানে বাড়ি ছেড়ে মোঃ সোহেলের সাথে পালিয়ে বিয়ে করে মোছাঃ স্বর্ণা খাতুন। বিয়ে পরে থেকে তাদের মধ্যে ছোটখাটো বিষয় নিয়ে মাঝে মধ্যেই ঝগড়া ও কলহর সৃষ্টি হতো। আনুমানিক ১৫/১৬ দিন আগে তাদের মধ্যে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ঝগড়া হলে স্বর্ণা তার মায়ের বাড়িতে চলে আসে। গত ১লা এপ্রিল স্বামী মোঃ সোহেল তার শ্বশুর বাড়ি গিয়ে স্ত্রী স্বর্ণার সাথে ভালো ব্যবহার করতে থাকে। সে দিন আনুমানিক বেলা সাড়ে ৩টার দিকে ঘরের ভেতর থেকে ডাক চিৎকারের শব্দ শুনে স্বর্ণার পরিবারের লোকজন রুমের ভিতর গিয়ে দেখে স্বর্ণার নিথর দেহ ঘরের মেঝেতে পড়ে আছে। সে সময় মোঃ সোহেল পালাতে গেলে পরিবারের লোকজন তাকে আটকে রেখে পুলিশে খবর দেয়। পরে রাজবাড়ী থানা পুলিশ তাকে উদ্ধার করে থানা হেফাজতে নিয়ে আসে। পরে স্বর্ণাকে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে নিয়ে আসলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।
 রাজবাড়ী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ ইফতেখারুল আলম প্রধান বলেন, সোহেল তার স্ত্রী স্বর্ণা কে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে হত্যা করেছে বলে প্রাথমিক ভাবে স্বীকার করেছে। এ ঘটনার পর নিহত স্বর্ণা খাতুনের মা বাদী হয়ে রাজবাড়ী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করে। পুলিশ সোহেলকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে।

জামাইকে বিষপানে হত্যার অভিযোগ শাশুড়ীর বিরুদ্ধে: রাজবাড়ী থানায় অভিযোগ
রাজবাড়ীতে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে স্টাফ মিটিং অনুষ্ঠিত
রাজবাড়ীতে পদোন্নতিপ্রাপ্ত দুই সদস্যকে  র‌্যাংক ব্যাজ পড়িয়ে দিলেন পুলিশ সুপার
সর্বশেষ সংবাদ