ঢাকা মঙ্গলবার, মে ২৮, ২০২৪
পাথর-বিটুমিন মিশ্রণযন্ত্রের দুর্গন্ধযুক্ত কালো ধোঁয়ায় বায়ু দুষণ॥প্রতিকারের কেউ নেই!
  • ষ্টাফ রিপোর্টার
  • ২০২৪-০৪-০৬ ১৪:৩৬:২৫

আকাশ ছেয়ে গেছে দুর্গন্ধ যুক্ত কালো ধোঁয়ায়, দেখে মনে হয় এ যেন ঘন কুয়াশা। বাতাসের গতি যেদিকে, এ ধোয়া সেই দিকে ছড়িয়ে পড়েছে। তবে এটা কোন যানবাহন বা ইটভাটার ধোয়া নয়। এ ধোঁয়া পাথরের ও বিটুমিনের মিশ্রণ যন্ত্র থেকে ছড়াচ্ছে।    
 রাজবাড়ী সদর উপজেলার আলাদিপুরে জেলা যুব উন্নয়ন অধিদপ্তর ভবনের সম্মুখে রাজবাড়ী-ফরিদপুর আঞ্চলিক মহাসড়কের পাশে ঠিকাদারী কাজের জন্য বিশাল পাথরের স্তূপ, বালির স্তুপ আর বিটুমিনের ড্রাম রাখা হয়েছে। তার পাশে একটি বিশাল যন্ত্র বসিয়ে বিকট শব্দে তৈরি করা হচ্ছে পিচ ঢালাই রাস্তার পাথর বিটুমিনের মিশ্রণ। ওই মিশ্রণ যন্ত্রের পাইপ দিয়ে বের হচ্ছে বিটুমিন পোড়া গন্ধযুক্ত বিষাক্ত কালো ধোঁয়া। আর এ ধোঁয়া ছড়িয়ে পড়ছে আকাশে বাতাসে, ঢুঁকে যাচ্ছে যুব উন্নয়ন ভবনে, টিটিসি ভবনে, পাসপোর্ট অফিসে, কামালদিয়া হাফিজিয়া মাদ্রাসায় ও বসত বাড়ি-ঘর সহ অন্তত আধা কিলোমিটার এলাকায়। এতে ভোগান্তির শিকার হচ্ছে যুব উন্নয়নের ও টিটিসির শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা, স্থায়ী বসিন্দারা ও সড়কে চলাচলরত পথচারীরা।
 সরকারের গুরুত্বপূর্ণ দুটি সরকারী প্রতিষ্ঠানের পাশে ও জনবসতি এলাকায় বসানো পাথর-বিটুমিনের মিশ্রণ যন্ত্রের কালো ধোঁয়াই প্রকাশ্যে বায়ু দূষণ হচ্ছে প্রতিদিন। অথচ এ বায়ু দূষণের ব্যাপারটি যেন দেখার কেউ নেই- এমনটি মন্তব্য করেন ভুক্তভোগীরা!
 এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞদের মত, কালো ধোঁয়ার সঙ্গে বস্তুকণা, সালফার ডাই অক্সাইড ও নাইট্রোজেন ডাই অক্সাইড, সিসাসহ অন্যান্য ক্ষতিকর উপাদান বাতাসে ছড়িয়ে পড়ছে। এর ফলে বাতাস দ্রুত দূষিত হচ্ছে। 
 বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের মতে, কালো ধোঁয়ায় থাকা বস্তুকণা ও সালফার ডাই অক্সাইডের প্রভাবে অ্যালার্জি, ফুসফুস, কিডনি জটিলতা ও হৃদরোগের ঝুঁকি রয়েছে। এ ছাড়া নাইট্রোজেন ডাই-অক্সাইড ও সিসার কারণে শ্বাসযন্ত্রের প্রদাহ, নিউমোনিয়া, ব্রঙ্কাইটিস ও শিশুদের বুদ্ধিবৃত্তি ব্যাহত হওয়াসহ মৃত্যুও হতে পারে।

জাতিসংঘের শীর্ষ আদালতের আদেশ উপেক্ষা করেই রাফাতে ইসরাইলের হামলা অব্যাহত
কিরগিজস্তানের অধ্যায়নরত বাংলাদেশের শিক্ষার্থীদের নিরাপত্তা নিশ্চিতকরণে কিরগিজ সরকারের প্রতি রাষ্ট্রদ
রাইসি’র স্থলাভিষিক্ত হচ্ছেন ভাইস প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ মোখবার
সর্বশেষ সংবাদ