ঢাকা শনিবার, জুলাই ২, ২০২২
রাজবাড়ীতে নিরাপদ অভিবাসন বিষয়ক সচেতনতামূলক সভা
  • আসহাবুল ইয়ামিন রয়েন
  • ২০২২-০৬-২৩ ০২:৩৮:৪৯
রাজবাড়ী কালেক্টরেটের সম্মেলন কক্ষে গতকাল ২২শে জুন সকালে নিরাপদ অভিবাসন, রিক্রুটিং লাইসেন্স, আচরণ ও শ্রেণিবিভাগ বিধিমালা বিষয়ে সচেতনতামূলক সভায় জেলা প্রশাসক মোঃ আবু কায়সার খান বক্তব্য রাখেন -মাতৃকণ্ঠ।

প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের আয়োজনে এবং রাজবাড়ী জেলা প্রশাসনের বাস্তবায়নে গতকাল ২২শে জুন সকালে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে নিরাপদ অভিবাসন, রিক্রুটিং লাইসেন্স, আচরণ ও শ্রেণিবিভাগ বিধিমালা বিষয়ে সচেতনতামূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়।
  সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে জেলা প্রশাসক মোঃ আবু কায়সার খান বক্তব্য রাখেন। অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক(সার্বিক) মোঃ মাহাবুর রহমান শেখের সভাপতিত্বে সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন এবং সংশ্লিষ্ট বিষয়ে পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশন করেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব মোঃ আব্দুস সালাম। 
  অন্যান্য অতিথিদের মধ্যে জেলা পরিষদের প্রশাসক বীর মুক্তিযোদ্ধা ফকীর আব্দুল জব্বার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অর্থ) মোঃ সালাহ উদ্দিন, রাজবাড়ী সরকারী আদর্শ মহিলা কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর দিলীপ কুমার কর, গোয়েন্দা সংস্থা এনএসআই’র উপ-পরিচালক মোঃ শরিফুল ইসলাম, সদর উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান রকিবুল হাসান পিয়াল, জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-সভাপতি হেদায়েত আলী সোহ্রাব, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক সফিকুল ইসলাম সফি, রাজবাড়ী প্রেসক্লাবের সভাপতি খান মোঃ জহুরুল হক, রাজবাড়ী সাইলাস মিড ব্যাপ্টিস্ট চার্চের যাজক জেমস হালদার এবং এনজিও রাসের নির্বাহী পরিচালক লুৎফর রহমান লাবু প্রমুখ বক্তব্য রাখেন। 
  এ সময় রাজবাড়ী সরকারী কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর মোস্তাফিজুর রহমান, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মার্জিয়া সুলতানা, গোয়ালন্দ উপজেলার সহকারী কমিশনার(ভূমি) মোঃ রফিকুল ইসলাম, জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনারগণ, বিভিন্ন সরকারী দপ্তরের কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, ব্যবসায়ীসহ বিভিন্ন শ্রেণী-পেশার ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।
  প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক আবু কায়সার খান বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ে তোলার অদম্য শক্তিকে কাজে লাগিয়ে প্রবাসে কর্মরত আমাদের ভাই-বোনেরা কঠোর পরিশ্রম করে দেশে রেমিট্যান্স পাঠানোর মাধ্যমে দেশের অগ্রযাত্রায় অগ্রণী ভূমিকা পালন করছেন। বিগত বছরগুলোতে করোনা মহামারীর সময়ে যখন বিশ্বের বিভিন্ন ধনী দেশের অর্থনীতি স্থবির হয়ে গিয়েছিল তখনও বিদেশে কর্মরত আমাদের প্রবাসীরা দেশে রেমিট্যান্স পাঠানোর মাধ্যমে দেশের অর্থনীতি সচল রেখেছিল, যার মধ্য দিয়ে বাংলাদেশ বিশ্বে অনন্য নজির স্থাপন করেছিল। প্রবাসীদের বিদেশে যেতে বা বিদেশে কর্মরত অবস্থায় যেকোন ধরনের অসুবিধায় সহযোগিতা করার জন্য সরকার প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় নামে একটি আলাদা মন্ত্রণালয় প্রতিষ্ঠা করেছে। সরকারের সদিচ্ছার জন্যই এটি সম্ভব হয়েছে। সরকারের এত কিছুর পরও অনেক সময় দেখা যায় আমাদের দেশের অনেক নাগরিকরা বিদেশে যাওয়ার ক্ষেত্রে এখনও কোন কিছু না বোঝা ও না জানার কারণে দেশ-বিদেশের ভূয়া রিক্রুটিং এজেন্ট ও তাদের দালালদের মাধ্যমে প্রতারণার শিকার হয়ে সর্বস্ব হারিয়ে বিদেশের জেলে দিন কাটাচ্ছে। অনেক ক্ষেত্রে এই সকল ভূয়া এজেন্ট ও দালালদের দ্বারা প্রতারিত হয়ে দুর্গম পথে অবৈধভাবে ইউরোপ ও আমেরিকার মতো উন্নত দেশে যেতে গিয়ে সাগরে নয়তোবা বনে-জঙ্গলে তাদের জীবন দিচ্ছে, যা আমাদের জন্য খুবই বেদনার। তাই বিদেশে যাওয়ার আগে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে বিস্তারিত খোঁজ-খবর নিয়ে যাওয়া উচিত।
  তিনি আরও বলেন, বর্তমান সরকারের আমলে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বাংলাদেশেী শ্রমিক থেকে শুরু করে যে কোন পেশায় কর্মরত প্রবাসীদের কর্মদক্ষতা ও সততার কারণে দেশের সুনাম অনেক বৃদ্ধি পেয়েছে। যার জন্য অনেক দেশ বর্তমানে বিভিন্ন পেশায় বাংলাদেশী নাগরিকদের নিতে চাচ্ছে, যা আমাদের জন্য ভালো সংবাদ। এটি সম্ভব হয়েছে বিদেশে গমনকারীদের পেশাভিত্তিক প্রশিক্ষণ প্রদানের জন্য সরকারী ও বেসরকারী পর্যায়ের বিভিন্ন টেকনিক্যাল ইনস্টিটিউট প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে। যারা বিদেশে গিয়ে দেশের জন্য রেমিট্যান্স প্রদানের মাধ্যমে দেশের অর্থনীতিকে শক্তিশালী করতে ভূমিকা রাখছেন, তারা বিদেশে যাওয়ার আগে যেকোন টেকনিক্যাল বিষয়ে ট্রেনিং নিয়ে গেলে আরও বেশী অর্থ আয় করে দেশে পাঠানোর মাধ্যমে তার পরিবার ও দেশের উন্নতিতে আরও ভূমিকা রাখতে পারবেন। 
  অন্যান্য বক্তাগণ তাদের বক্তব্যে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে প্রবাসীদের জন্য সরকারের দেয়া সুযোগ-সুবিধাসহ এ সংক্রান্তে বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন। এছাড়াও তারা বিদেশে যাওয়ার পূর্বে বিদেশে গমনকারীদের সমস্ত তথ্য প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়কে অবহিত করে যাওয়ার আহ্বান জানান, যাতে বিদেশে যাওয়ার ক্ষেত্রে কেউ প্রতারণার শিকার না হয়।

ট্রেজারী পরিদর্শনে ডিসি
করোনার বিস্তার ঠেকাতে রাজবাড়ীতে মোবাইল কোর্টের তৎপরতা॥মাস্ক বিতরণ
রাজবাড়ীতে জেকা বাজারের প্রতারিত গ্রাহকদের মানববন্ধন
সর্বশেষ সংবাদ